1. admin@banglardorpon.com.bd : belal :
  2. firoz@banglarsangbad.com.bd : Firoz Kobir : Firoz Kobir
  3. rubin@wfh.thewolf.club : lavonneportillo :
  4. lima@banglardorpon.com.bd : Khadizatul kobra Lima : Khadizatul kobra Lima
  5. lon@wfh.thewolf.club : roboshaughnessy :
  6. test23519785@wintds.org : test23519785 :
  7. test36806100@wintds.org : test36806100 :
  8. test37402178@wintds.org : test37402178 :
  9. test38214340@wintds.org : test38214340 :
  10. test40493353@wintds.org : test40493353 :
  11. test9417170@wintds.org : test9417170 :
  12. rona@wfh.thewolf.club : waldo43b400667 :
করোনায় এই সময়ে শ্বাসকষ্ট, ডায়াবেটিস, হৃদরোগী ও গর্ভবতী নারীদের করণীয়! - বাংলার দর্পন
বাংলার দর্পন পরিবারে আপনাকে স্বাগতম...!!!

এখন সময় রাত ১:০১ আজ শনিবার, ১৬ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৩১শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ২০শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি




করোনায় এই সময়ে শ্বাসকষ্ট, ডায়াবেটিস, হৃদরোগী ও গর্ভবতী নারীদের করণীয়!

রিপোর্টার
  • সংবাদ সময় : সোমবার, ৬ এপ্রিল, ২০২০
  • ৪৩২ বার দেখা হয়েছে

অনলাইন ডেস্ক: করোনা ভাইরাসের প্রকোপ বিশ্বজুড়ে। এমতবস্থায় নিরাপত্তার স্বার্থে গৃহবন্দী হয়ে আছে সবাই। যাদের আগে থেকেই শ্বাসকষ্ট, ডায়াবেটিস ও হৃদ রোগ আছে তাদের ৩০ মিনিট থেকে ৪০ মিনিট হাঁটার পরামর্শ দিয়ে থাকেন চিকিৎসকরা। এসব রোগীদের করণীয় কী?

বেসরকারি একটি টেলিভিশনে রেড ক্রিসেন্ট হলি ফ্যামিলি হাসপাতালের সার্জারী বিশেষজ্ঞ ডা. আফরিন সুলতানা বলেন, যাদের শ্বাসকষ্ট আছে সবার থেকে দুরুত্ব বজায় রেখে চলতে হবে। ফেস মাস্ক অবশ্যই ব্যবহার করতে হবে। আর মনে রাখতে হবে একই মাস্ক দীর্ঘ সময় ব্যবহার করা যাবে না। আর মাস্ক ভিজে গেলে অবশ্যই ফেলে দিতে হবে। কাপড়ের তৈরি মাস্ক পড়লে পরিষ্কার করে নিতে হবে।

এই সময় কোনভাবেই অসুস্থ হওয়া যাবে না। খাওয়া দাওয়া থেকে শুরু করে সবকিছু নিয়ম মেনে চলতে হবে। আর সাথে রাখতে হবে প্রয়োজনীয় ওষুধ।

ডায়াবেটিস ও হৃদরোগীদের বিষয়ে তিনি আরও বলেন, এখন হোম কোয়ারেন্টিন অবস্থায় আছি আমরা অধিকাংশ মানুষ। এসব রোগীদের নিরাপদ দূরুত্ব বজায় রেখে হাঁটতে পারেন। এটা বাড়ির ছাদে হতে পারে। ছাদে যদি অধিক লোকসমাগম হয় সেক্ষেত্রে দুরুত্ব বজায় রেখে চলা ভালো। বাইরে হাঁটা শেষে অবশ্যই পোশাক পরিবর্তন করে নিয়ে হাত ভালো ভাবে পরিষ্কার করে নিতে হবে। বাড়িতে থাকা অবস্থায় কিছু সময় পরপর হাঁটাচলা করতে পারেন। কষ্ট না হলে এক তলার সিঁড়ি বাইতে পারেন।

গর্ভবতী নারীদের বিষয়ে ডা. আফরিন সুলতানা বলেন, গর্ভবতী নারীদের করোনায় আক্রান্ত হবার ঝুঁকি বেশি তা না। তবে তাদের যেহেতু শরীরের গঠন পরিবর্তন হয়। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার পরিবর্তন আসে। তাই সচেতনতা সব থেকে বেশি নিতে হবে। এসময় জরুরি না হলে হাসপাতালে না যাওয়াই ভালো। আর চিকিৎসকের সাথে টেলিফোনের মাধ্যমে সবসময় যোগাযোগ রক্ষা করে নিরাপদে থাকার চেষ্টা করবেন।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ধরনের আরো খবর



প্রকৌশল সহযোগিতায়: মোঃ বেলাল হোসেন